Barak Bulletin is a hyperlocal news publication which features latest updates, breaking news, interviews, feature stories and columns.
Also read in

এই দেশ আপনার কাছে চাইছে আরো কিছু

রক্ত মানুষের শরীরের এক অপরিহার্য তরল পদার্থ- এই তরল পদার্থের আজ পর্যন্ত কোনো বিকল্প তৈরি হয়নি। যারা স্বেচ্ছায় কোনো আর্থিক লেনদেন ছাড়াই রক্তদান করেন, তারাই হচ্ছেন সবচেয়ে নিরাপদ দাতা।

আমাদের দেশের হাসপাতাল গুলিতে রোগীদের চিকিৎসার জন্য প্রচুর রক্তের প্রয়োজন । বছরে প্রায় ১ কোটি ৩০ লক্ষ ইউনিট। এই প্রয়োজনের মধ্যে কমবেশি এক কোটি ইউনিট সংগ্রহ হয়ে গেলেও প্রায় ৩০ লক্ষ ইউনিট কম যোগান রয়েছে। স্বেচ্ছা রক্তদানের মাধ্যমে এই পরিমাণ রক্ত পাওয়া যায়না। যার জন্য রোগী এবং তার আত্মীয়-স্বজন রক্ত সংগ্রহ নিয়ে দুশ্চিন্তার মধ্যে থাকেন।

১ থেকে ৩ শতাংশ স্বাস্থ্যবান এবং রক্তদানে সক্ষম ভারতীয়রা নিয়মিত রক্তদান করলে পুরো ভারতবর্ষের রক্তের চাহিদা পূরণ হতে পারে। তাই সবার সক্রিয় সহযোগিতা থাকলে প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রে রোগী এবং আত্মীয়স্বজনকে রক্তের প্রয়োজনে ছোটাছুটি করতে হবে না।

পরিসংখ্যান অনুযায়ী, প্রতি দুই সেকেন্ডে পৃথিবীর কোথাও-না-কোথাও একজনের রক্তের প্রয়োজন হয়। ভারতে গড়ে ২৩ কোটি ৪০ লক্ষ বড় ধরনের অপারেশন হয়ে থাকে। তাছাড়া ৬ কোটি ৩০ লক্ষ ক্যান্সার সংক্রান্ত রোগী এবং এক কোটি প্রসূতি সংক্রান্ত রোগী রয়েছেন, যাদের রক্তের প্রয়োজন হয়। তাছাড়াও আছেন কিছু রোগী যাদের নিয়মিত পুনঃ পুনঃ রক্তের প্রয়োজন হয় যেমন থ্যালাসেমিয়া, হিমোফিলিয়া, সিকেল সেল অ্যানিমিয়া প্রভৃতি রোগীরা।

শুনে আশ্চর্য হবেন যে, এই দেশে প্রতিদিন ৩৮০০০ ইউনিট প্রয়োজন। যদিও বিভিন্ন সংস্থা ব্যক্তি এবং প্রতিষ্ঠান রক্তদানে এগিয়ে আসছেন, তবু চাহিদা এবং যোগানের মধ্যে বিরাট বড় ফরাক রয়ে গেছে। এক্ষেত্রে বিশেষ উদ্যোগে স্বেচ্ছা রক্তদান আমাদের দেশে রক্তের চাহিদা পূরণে বিরাট বড় ভূমিকা পালন করতে পারে। কম ঝুঁকিপূর্ণ বা নিরাপদ রক্তদাতাদের এক বিশেষ গোষ্ঠী গড়ে তোলার লক্ষ্যে কাজ করতে হবে। এই লক্ষ্য অর্জন করতে হলে আরো বেশি বেশি রক্তদান শিবির আয়োজন করতে হবে এবং স্বেচ্ছা রক্তদাতাদের রক্তদানে স্বাচ্ছন্দ্য আনতে হবে।

স্বেচ্ছা রক্তদানের এই মহতী আন্দোলনে যোগদান করে ব্যক্তি, সংস্থা বা প্রতিষ্ঠান সাধারণ জনগণের জীবন রক্ষায় এক বিরাট ভূমিকা পালন করতে পারে; এর মাধ্যমে স্বেচ্ছা রক্তদানের সংস্কৃতিও গড়ে উঠবে। আসুন না, আমরা সবাই শপথ নিই স্বেচ্ছায় নিয়মিত রক্তদান করার এবং সাথে অন্যদেরও উৎসাহিত করি যাতে আরও অনেক অনেক স্বেচ্ছা রক্তদান শিবির সফলভাবে আয়োজন করা সম্ভব হয়; যাতে স্বেচ্ছাদানের মাধ্যমেই প্রয়োজনীয় সমস্ত রক্ত সংগ্রহ করা সম্ভব হয়, রিপ্লেসমেন্টে নয়।

ভারত বর্ষ আপনাদের কাছে এমনটাই চাইছে। গর্বিত রক্তদাতা হোন, মানুষের জীবন রক্ষায় এগিয়ে আসুন।

Comments are closed.